২০৩৩ সালে বিশ্বের ২৪তম অর্থনীতি হবে বাংলাদেশ

অনলাইন ডেস্ক : ২০৩৩ সাল নাগাদ বিশ্বের ২৪তম অর্থনীতিতে পরিণত হবে বাংলাদেশ। যুক্তরাজ্য ভিত্তিক ‘সেন্টার ফর ইকোনমিকস এ্যান্ড বিজনেস রিসার্চ’ কর্তৃক প্রকাশিত ‘ওয়ার্ল্ড ইকোনমিক লিগ টেবিল ২০১৯’-এ কথা বলা হয়েছে।

বিশ্বের ১৯৩টি অর্থনীতির অবস্থা বিবেচনা করে এই র‌্যাংঙ্কিং নির্ধারন করা হয়েছে। এতে বলা হয়, ভারত ও মিয়ানমারের সাথে স্থল সীমান্ত রয়েছে দক্ষিণ এশিয় রাষ্ট্র বাংলাদেশের। গত একদশক যাবৎ বিশ্বের ৮ম জনবহুল রাষ্ট্র বাংলাদেশের গড় প্রবৃদ্ধি ৬ দশমিক ৩ শতাংশ।

চারহাজার ৬শ’ মার্কিন ডলার মাথাপিছু আয় নিয়ে বিশ্বব্যাংকের র‌্যাংকিং অনুসারে এটি নিম্ন-মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত হয়েছে। বাংলাদেশের অর্থনীতির প্রবৃদ্ধি দেশটির অভ্যন্তরীন চাহিদাজনিত ব্যয়, সরকারের ব্যয়, রেমিট্যান্স এবং রপ্তানির দ্বারা চালিত হচ্ছে।

প্রতিবেদনে আরও বলা হয়, কিছু চ্যালেঞ্জ সত্ত্বেও অর্থনীতির আধুনিকায়নে দেশটি গুরুত্বপূর্ন পদক্ষেপ নিয়েছে। অবকাঠামোগত উন্নয়ন ও সামাজিক নিরাপত্তা বেষ্টনী পরিচালনার লক্ষ্যে সরকারকে রাজস্ব আদায় বৃদ্ধির প্রতি গুরুত্ব দিতে হবে। মিয়ানমার থেকে বলপূর্বক বাস্তুচ্যুত রোহিঙ্গাদের বাংলাদেশে আশ্রয়দানের কারনে যে চাপ সৃষ্টি হয়েছে- তাও উল্লেখ করা হয়।

‘তৈরি পোশাক বাংলাদেশের প্রধান রপ্তানি পণ্য ২০১৭ সালের হিসেব অনুয়ায়ি দেশটির রপ্তানি আয়ের ৮০ শতাংশ তৈরি পোশাক খাত থেকে আসে। দেশটির আয়ের আরেকটি প্রধান উৎস রেমিট্যান্স। এছাড়াও বাংলাদেশের ৪৩ শতাংশ মানুষ কৃষিখাত সংশ্লিষ্ট কাজে জড়িত।’

Facebook Comments

You May Also Like

%d bloggers like this: